শনিবার, এপ্রিল ১৭, ২০২১

ভাঙ্গায় চাঁদা না দেওয়ায় সৌদি প্রবাসীর বাড়ি ভাংচুর, ২টি মিথ্যা মামলা দায়ের

ভাষান্তর: | বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সাথী আক্তার, ভাঙ্গা প্রতিরিধিঃ ভাঙ্গা উপজেলার চুমুরদী গ্রামে সৌদি প্রবাসী মােঃ রাজিব হােসেন ওরফে রঙ্গু ফকিরের নিকট এলাকার চাঁদাবাজরা মিলে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবীর অভিযােগ উঠেছে। এ ঘটনায় রঙ্গু ফকির বাদি হয়ে চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে একটি চাঁদাবাজির মামলা করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত ২ আগষ্ঠ সকাল ১১টার সময়ে। এঘটনার পর চাঁদাবাজরা হামলা ও ভাংচুরসহ সৌদি প্রবাসীর নামে ২টি মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে মর্মে। অভিযােগ করেন রঙ্গু ফকির।

সৌদি প্রবাসী মােঃ রাজিব হােসেন ওরফে রঙ্গু ফকির অভিযােগ করে জানায়, আমি বর্তমান সাংসদ নিক্সন চৌধুরীর দল করি, সে সম্পর্কে আমার মামা হয় আর অপর পক্ষ শাহীন, উজ্জল, আনােয়ার ও ফয়সালরা কাজী জাফরউল্লাহর দল করে। দলাদলি ছাড়াও এদের সাথে আমার পূর্ব শত্রুতার জের ধরে চাঁদাবাজরা আমার নিকট এক লাখ টাকা চাঁদা দ্বাবী করায় আমি ৫০ হাজার টাকা পরিশােধ করলেও বাকি আরাে ৫০ হাজার টাকা দাবী করেন তারা। এরপর বাকি ৫০ হাজার টাকা পরিশােধ না করায় আমার বাড়ি ১৫টি এলইডি বডার লাইট ও গেট ভাংচুর করে। তাদের ভয়ে আমার ৩টি ভাড়াটিয়া চলে যায়।

রঙ্গু ফকির আরাে অভিযােগ করে বলেন, শাহীন, উজ্জল, আনােয়ার ও ফয়সালরা আমার বিরুদ্ধে পর পর ২টি মিথ্যা মামলা দায়ের করে আমাকে হয়রানী করছে। পুলিশ প্রশাসন ও সরকারের নিকট দাবী জানান, ঘটনা গুলাের সুষ্ঠ তদন্ত সাপেক্ষ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্থির জোর দাবি জানাই।

রঙ্গু ফকির আরো বলেন, বাজারে রুস্তুম ও শাহেনশারা একটা ঘর তুলে ওই ঘর তারাই ভাঙচুর করে আমার নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে।

অভিযুক্ত শাহিন ও উজ্জ্বল জানান, আমাদের নামে রঙ্গু যে অভিযোগ করেছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন। প্রকৃতপক্ষে তারা আমাদের বাড়ি ও দোকান ভাঙচুর করেছে। এজন্য রঙ্গুর নামে আমরা মামলা করেছি। আর এই মামলা করার কারণে রঙ্গু ফকির আমাদের নামে মিথ্যা মামলা করে।

এ ব্যাপারে ভাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মােঃ শফিকুর রহমান জানান, মামলার ঘটনা সুষ্ঠ তদন্ত সাপেক্ষ আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুন: