হতদরিদ্র মানিক সেক একটু বৃষ্টি হলে ঘর দিয়ে নামে পানি

ভাষান্তর: | বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সোহাগ মাতুব্বর, ফরিদপুর প্রতিনিধি: ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার গঙ্গাধরদী গ্রামের উত্তরপাড়া (৪নং ওয়ার্ড) বাসিন্দা মানিক সেক (৭০)। তিন ছেলে দুই মেয়ে নিয়ে সংসার ছিল সুখের। কিন্তু ছেলে মেয়ে বড় হয়ে গেছে যে যার মতো আলাদা সংসার। অভাবের তাড়নায় স্ত্রী মারা গেছেন বছর চারেক হলো।

এই বিষয়ে মানিক সেক(৭০) এর সঙ্গে কথা বলে জানা যায় অত্যন্ত শোচনীয় অবস্থার মধ্যে দিয়ে জীবন অতিবাহিত করতে হচ্ছে। কখনো পাইনি কারো সাহায্য সহযোগিতা। থাকার একচালা টিনের ঘর দিয়ে পরেছে পানি ।

দেহের প্রতিটি হাড় তার অভাবের সাক্ষী দিচ্ছে। এই অসহায় মানুষের পাশে যদি আসতো কেউ যদি তাকে সাহায্য সহযোগিতা করতো তাহলে হয়তোবা বেঁচে থাকতে পারবে ।

এই বিষয়ে দেলোয়ার পিতা মানিক সেক বলেন “পরিবারের সবার অভাব অনটনের মধ্যে সংসার জীবন অতিবাহিত করতে হচ্ছে । জীবন যুদ্ধে যে যার সংসার চালাতে তারাই হিমশিম খাচ্ছেন। তাই সংসারে বেঁচে থাকার জন্য খাদ্য আমরা দিতে পারবো কিন্তু তার একটি ঘরের প্রয়োজন। এই বৃদ্ধ বয়সে আমার বাবার মাথা গোঁজার ঠাঁই টা খুব বেশী ই প্রয়োজন।

মানিক সেক এই পর্যন্ত পাই নি কোন বয়স্ক ভাতা শিশু কার্ড বা সরকারি অনুদান। মাথা গোঁজার ঠাঁই টা দিয়ে পরেছে পানি। এই মূহুর্তে তাহার একটি ঘরের প্রয়োজন।

শেয়ার করুন: