মঙ্গলবার, অক্টোবর ১৯, ২০২১

ভাঙ্গায় অনুষ্ঠিত হলো আন্তর্জাতিক দুর্যোগ প্রশমন দিবস- ২০২১

ভাষান্তর: | বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সোহাগ মাতুব্বর, স্টাফ রিপোর্টার: ফরিদপুরের ভাঙ্গায় অনুষ্ঠিত হয়েছে ভূমিকম্প ও অগ্নিকাণ্ড বিষয়ক মহড়া। ভাঙ্গা উপজেলার ঘারুয়া ইউনিয়নের প্রফেসর এম.এ ওয়াজেদ আলী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এই মহড়া অনুষ্ঠিত হয়।

এই সময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম হাবিবুর রহমান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আজিম উদ্দিন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদ সদস্য শাহীনুর ইসলাম, ঘারুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সফি উদ্দিন মোল্লা, স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর এম.এ ওয়াজেদ আলী, উপজেলা প্রশাসনিক কর্মকর্তা মানস বাবু, যুলীগ নেতা বাদল হোসেন বাবু, উপজেলা ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তা খোকন সহ ফায়ার সার্ভিসের একটি চৌকস ইউনিট।

এই বিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান এস.এম হাবিবুর রহমান বলেন, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের অধীনে উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক এই রকম জন সচেতনতা মূলক  আয়োজন করার জন্য ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।  এছাড়াও তিনি বলেন দুর্যোগ দুই ধরনের একটি প্রাকৃতিক ও অন্যটি মানব সৃষ্টি। আজকের অনুষ্ঠানে কিভাবে গ্যাস সিলিন্ডারের আগুন নেভানো যায় তা হাতে কলমে শেখানো হলো। কখনো কেউ যদি দুর্ঘটনার শিকার হই তাহলে কেউ যেন ভয় না পাই বুদ্ধিমত্তার সাথে মোকাবিলা করতে পারি।

১৩ অক্টোবর আন্তর্জাতিক দুর্যোগ প্রশমন দিবস ২০২১ উপলক্ষে এই মহড়ার আয়োজন করা হয়। এই বছরের প্রতিপাদ্য “মুজিববর্ষের প্রতিশ্রুতি জোরদার করি দুর্যোগ প্রস্তুতি”।

এই বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আজিম উদ্দিন বলেন, এ বছরের শ্লোগান “মুজিববর্ষের প্রতিশ্রুতি জোরদার করি দুর্যোগ প্রস্তুতি” সামনে রেখে আমরা আন্তর্জাতিক দুর্যোগ প্রশমন দিবস পালন করছি। আজকের ভূমিকম্প ও অগ্নিকাণ্ড বিষয়ক মহড়া থেকে অর্জিত জ্ঞান প্রাত্যহিক জীবনে কাজে লাগাবো।

তিনি আরো বলেন, সরকার দুর্যোগ ঝুঁকি হ্রাস করার লক্ষ্যে নানা ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে। বজ্রপাতের পূর্বে সে সংকেত দেওয়ার যন্ত্র আবিষ্কার হয়েছে কিছুদিন আগে সেটি প্রথমে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে  হাওর  অঞ্চলের বসানো হচ্ছে। সেই সঙ্গে দুর্ঘটনার সময় মাথা ঠান্ডা রাখার ও দ্রুত ফায়ার সার্ভিসের লোকজন কে খবর দেওয়ার পরামর্শ প্রদান করেন।

শেয়ার করুন: